মুয়াজ্জিনের মাইকের ডাকে উদ্ধার কাজে ছুটে আসেন এলাকার মানুষ

0
22

ট্রেন দুর্ঘটনার পর স্থানীয় মসজিদের মুয়াজ্জিন সোহরাব হোসেন মাইকে ঘোষণা দেন লোকজনকে ঘর থেকে বের হতে। তিনিও ছুটে যান ঘটনাস্থলে। মুহূর্তের মধ্যেই আশপাশের লোকজন ও যুবকরা ঘুম থেকে উঠে দৌঁড়ে ঘটনাস্থলে পৌঁছে উদ্ধার কাজ শুরু করেন। মঙ্গলবার রাত পৌনে ৩টার দিকে মন্দভাগ এলাকার মসজিদের মুয়াজ্জিন সোহরাব হোসেন উদ্ধারের জন্য সবাইকে এগিয়ে আসার আহ্বান জানান। এত করে ফায়ার সার্ভিস, পুলিশ ও অন্যান্য উদ্ধারকারী দল আসার আগেই প্রথমে এগিয়ে আসেন এলাকার লোকজন।

এলাকাবাসী ট্রেনের ভেতর থেকে শত শত যাত্রীকে বের করে আনেন। কেউ আহত, কেউ নিহত আবার কেউ ট্রেনের ভেতর আটকা- এই দৃশ্য দেখে লোকজন নিজের জীবন বাজি রেখে ট্রেন থেকে যাত্রীদের উদ্ধার করেন। এই হৃদয়বিদারক ঘটনায় এলাকার লোকজন হতভম্ব হয়ে পড়েন। এলাকাবাসী ঘটনাস্থলে আসার আধা ঘণ্টা পর ফায়ার কর্মী, পুলিশ ও রেলওয়ের কর্মকর্তা এবং অন্যান্য উদ্ধারকারী দল ঘটনাস্থলে এসে উদ্ধার কাজ শুরু করে বলে জানান রফিকুল ইসলাম।

মুয়াজ্জিন সোহরাব হোসেন জানান, এত বড় বিকট আওয়াজ আমার জীবনে কখনও শুনিনি। প্রথমে আওয়াজ শুনে আমি ভয় পেয়ে যাই। পরে বাইরে বের হয়ে দেখি ট্রেন দুর্ঘটনা ঘটেছে। ঘটনাস্থলটি ছিল মসজিদের কাছেই। তাই আওয়াজ পেয়ে যাই। এরপর মাইকে ডেকে এলাকার লোকজনকে জাগাই। তাদের নিয়ে উদ্ধার কাজে লেগে পড়ি।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here